‘এমন নৃশংস ঘটনা আমার ছেলে ঘটাবে, চিন্তাও করতে পারি না’

সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়া উপজেলার উধুনিয়া ইউনিয়নের তেলিপাড়া গ্রাম। উপজেলা সদর থেকে প্রায় ১৮ কিলোমিটার পশ্চিমে। এ গ্রামের রামকোমল ভৌমিকের বাড়িতে যখন পৌঁছাই, তখন বেলা প্রায় দুইটা। সদর দরজা দিয়ে বাড়িতে ঢুকেই চোখে পড়ল প্রমীলা রানী (৫৫) বারান্দার মেঝেতে বসে বিলাপ করছেন। এটি তাঁর ছোট বোন মিনা রানীর বাড়ি। রামকোমল মিনা রানীর স্বামী।

সিরাজগঞ্জের তাড়াশে একই পরিবারের তিনজনকে গলা কেটে হত্যার কথা স্বীকার করা আসামি রাজীব কুমার ভৌমিক (৩৫) প্রমীলা রানীর ছেলে। হত্যার শিকার বিকাশ সরকার (৪৫) প্রমীলার আপন ছোট ভাই। গ্রেপ্তারের পর রাজীব পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে জানান, গত ২২ জানুয়ারি মামা বিকাশ তাঁর সঙ্গে যৌথ ব্যবসা থেকে প্রাপ্য টাকা সাত-আট দিনের মধ্যে ফেরত দেওয়ার জন্য তাঁকে চাপ দেন এবং টাকার জন্য তাঁর মাকে (প্রমীলা রানী) মুঠোফোনে কল করে গালমন্দ করেন। টাকা জোগাড় করতে ব্যর্থ হয়ে ও বকাবকিতে মনঃকষ্ট পেয়ে মামা ও তাঁর পুরো পরিবারকে হত্যার পরিকল্পনা করেন রাজীব।

বিস্তারিত পড়ুন

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top