ব্যাংকে অর্থ লেনদেন বেড়েছে ১৫ শতাংশ

দেশের ব্যাংক খাতে শ্লথ হয়ে এসেছে আমানতের প্রবৃদ্ধি। বাড়ছে না ব্যাপক মুদ্রার (ব্রড মানি) জোগান। ৮ শতাংশের ঘরে আটকে আছে ব্রড মানির প্রবৃদ্ধি। গোটা ব্যাংক খাতে রিজার্ভ মানির প্রবৃদ্ধিও ঋণাত্মক। যদিও বিপরীত চিত্র দেখা যাচ্ছে ব্যাংকের অর্থ লেনদেনে। চলতি অর্থবছরের প্রথম পাঁচ মাসে (জুলাই-নভেম্বর) ব্যাংকগুলোয় লেনদেন বেড়েছে ১৫ শতাংশের বেশি। এ সময়ে চেক ক্লিয়ারিংয়ের মাধ্যমে লেনদেন কিছুটা কমলেও বেড়েছে ডিজিটাল সব মাধ্যমে। 

বাংলাদেশ ব্যাংকের তথ্য পর্যালোচনা করে দেখা যায়, চলতি ২০২৩-২৪ অর্থবছরের প্রথম পাঁচ মাসে দেশের ব্যাংক খাতের জনপ্রিয় মাধ্যমগুলো ব্যবহার করে (আরটিজিএস ছাড়া) মোট ২৭ লাখ ৫১ হাজার ১১৮ কোটি টাকা লেনদেন হয়েছে। ২০২২-২৩ অর্থবছরের একই সময়ে মোট লেনদেন ছিল ২৩ লাখ ৯০ হাজার ২৩৬ কোটি টাকা। সে হিসাবে গত অর্থবছরের প্রথম পাঁচ মাসের তুলনায় এ সময়ে ৩ লাখ ৬০ হাজার ৮৮২ কোটি টাকার লেনদেন বেশি হয়েছে। এক্ষেত্রে লেনদেনে প্রবৃদ্ধির হার ১৫ দশমিক শূন্য ৯ শতাংশ। চেক ক্লিয়ারিং, ইএফটি, ডেবিট কার্ড, ক্রেডিট কার্ড, ইন্টারনেট ব্যাংকিং, মোবাইল ব্যাংকিং (এমএফএস) ও এজেন্ট ব্যাংকিংয়ের লেনদেনের হিসাব আমলে নেয়া হয়েছে। 

সংশ্লিষ্টরা বলছেন, দেশে টাকার অবমূল্যায়ন হওয়ায় ডলারের দর বেড়েছে। এ কারণে একই পরিমাণ ডলার ক্রয়-বিক্রয়ে আগের চেয়ে বেশি অর্থের প্রয়োজন হচ্ছে। আবার উচ্চ মূল্যস্ফীতি বা জিনিসপত্রের দাম বেড়ে যাওয়ায় মানুষের আগের চেয়ে বেশি অর্থ ব্যয় করতে হচ্ছে। একই পরিমাণ পণ্য ক্রয়-বিক্রয়ে টাকার প্রয়োজন হচ্ছে বেশি। এসব কারণে ব্যাংক খাতে আমানতের বড় প্রবৃদ্ধি না হলেও অর্থ লেনদেন বাড়ছে।

বিস্তারিত পড়ুন

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top