এবার কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা নিয়ে জাতিসংঘে সংলাপ

সাম্প্রতিক আলোচিত কয়েকটি বিষয়ের মধ্যে কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা (এআই) অন্যতম। এরইমধ্যে কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তার অনেক ধরনের ইতিবাচক সুবিধার পাশাপাশি নেতিবাচক কিছু বিষয়ও উঠে এসেছে। যার মধ্যে রয়েছে কোটি কোটি মানুষের চাকরি কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তার কাছে চলে যাওয়ার ভয়। প্রশ্ন উঠেছে, কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা আশীর্বাদ না অভিশাপ?

কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তাকে ঘিরে যাবতীয় অনিশ্চয়তা দূর করতে চলতি সপ্তাহে নিউইয়র্কে আনুষ্ঠানিক আলোচনার আয়োজন করতে যাচ্ছে জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদ। ব্রিটেনের সভাপতিত্বে নিরাপত্তা পরিষদের এই আলোচনায় উদীয়মান কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা প্রযুক্তি দ্বারা সৃষ্ট সম্ভাব্য ঝুঁকি মোকাবিলায় আন্তর্জাতিক সমর্থন পাওয়ার আশা করছে জাতিসংঘ। আলোচনার লক্ষ্য- বৈশ্বিক শান্তি ও নিরাপত্তার ওপর কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তার প্রভাব সম্পর্কে একটি বৈশ্বিক সংলাপ শুরু করা।

অর্থনীতিকে নতুন আকার দেওয়া, আন্তর্জাতিক নিরাপত্তা সীমারেখা পরিবর্তন ও বৃহৎ খাতকে প্রভাবিত করার সম্ভাবনা থাকায় বিশ্বের অনেক দেশের সরকারই কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তাকে কাজে লাগানোর চেষ্টা করছে। তবে সমন্বিত প্রচেষ্টার জরুরি প্রয়োজনকে স্বীকৃতি দিয়ে ব্রিটেন কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তাকে নিয়ন্ত্রণে অগ্রণী ভূমিকা পালন করতে চায়।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top